রাজনীতি

সকালের সময় 'কোভিড-১৯' আপডেট
# আক্রান্ত সুস্থ মৃত
বাংলাদেশ 40321 7925 559
বিশ্ব 5,803,658 2,508,944 357,712

জনমতকে কিছুটা গুরুত্ব দেওয়া হয়েছে : ফখরুল

করোনা ভাইরাসের কারণে আর্থিক ক্ষতি মোকাবিলায় সরকারের ৭২ হাজার ৭৫০ কোটি টাকার আর্থিক প্রণোদনা প্যাকেজ ঘোষণার মাধ্যমে ‘জনমতকে কিছুটা গুরুত্ব দেওয়া হয়েছে’ বলে উল্লেখ করে বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, গরিব মানুষের জন্য অনুদান নয়, ব্যবসায়ীদের জন্য ঋণ প্যাকেজ ঘোষণা করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এটা দিয়ে চলমান সংকট নিরসন হবে না। আসলে এটা পুরোটা দিয়েছে ঋণ। এখানে অনুদান বলতে কিছুই নেই।

রবিবার বিকালে উত্তরায় নিজ বাসায় সাংবাদিকদের কাছে এসব কথা বলেন মির্জা ফখরুল। ফখরুল বলেন, এটাকে আমরা তখনই পজিটিভ বলতে পারতাম, যদি দেখতাম যে আসল সমস্যা সমাধান করার জন্য তিনি উদ্যোগী হয়েছেন। অর্থাৎ, সাধারণ খেটে খাওয়া মানুষ, কৃষকদের জন্য কোনও কথা প্রধানমন্ত্রীর প্যাকেজে নেই।

মির্জা ফখরুল বলেন, আসলে এটা পুরোটা তো দিয়েছে ঋণ। এখানে অনুদান বলতে কিছুই নেই। সব ঋণের প্যাকেজ। আমরা বলেছি যে সাধারণ মানুষকে ১৫ হাজার কোটি টাকা অনুদান দিতে হবে। কিন্তু সেই বিষয়ে এখানে সুনির্দিষ্ট কিছু বলা নেই। সরকারের মধ্যে সামগ্রিকভাবে সমন্বয়নহীনতা রয়েছে বলে উল্লেখ করে বিএনপি মহাসচিব বলেন, সবক্ষেত্রে সমন্বয়নহীনতা, দায়িত্ব পালনে উদাসীনতা রয়েছে।

মির্জা ফখরুল বলেন, প্রধানমন্ত্রীর এই প্যাকেজ ঘোষণায় আমরা কিছুটা হলেও আশস্ত হলাম যে তারা জনমতকে কিছুটা গুরুত্ব দেওয়া শুরু করেছে। কিন্তু দুর্ভাগ্যের বিষয় হচ্ছে, আমরা যে বিষয়গুলো উল্লেখ করেছিলাম এবং যা করা অত্যন্ত জরুরি, সেই বিষয়গুলো প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কথায় সেভাবে আসেনি। বিশেষ করে ‘দিন আনে দিন খায়’ এই সংখ্যাটা বাংলাদেশে সবচেয়ে বেশি। কিন্তু প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্যে তাদের নিয়ে কোনও কথা আমরা দেখতে পাইনি। এই খাতে বিএনপি ১৫ হাজার কোটি টাকা বরাদ্দ দেওয়ার কথা বলেছে। অথচ প্রধানমন্ত্রী এই নিয়ে সুনির্দিষ্ট কোনও কথা বলেননি। তিনি বলেছেন, সামাজিক সুরক্ষা বলয়টা আরও বড় করা হবে’। তবে কত বড় হবে বা তার জন্য কত টাকা বরাদ্দ করা হবে, এই নিয়ে কিছু বলা হয়নি।

মন্তব্য