শিক্ষা

সকালের সময় 'কোভিড-১৯' আপডেট
# আক্রান্ত সুস্থ মৃত
বাংলাদেশ 297,083 182,875 3,983
বিশ্ব 23,728,063 16,193,743 814,657

"হেফাজতে মৃত্যু নিবারণ আইন নিয়ে মানুষের অজ্ঞতা দূর করতে হবে"

'জাতিসংঘের নির্যাতন বিরোধী সনদে স্বাক্ষরকারী দেশ হিসেবে বাংলাদেশে নির্যাতন ও হেফাজতে মৃত্যু নিবারণ আইন-২০১৩ প্রণয়ন করা হলেও আইনটি সম্পর্কে বেশিরভাগ মানুষ অজ্ঞাত। পুলিশ বা যেকোনো সরকারি কর্মকর্তার হেফাজতে নির্যাতন বা মৃত্যু হলে প্রতিকারে আইন আছে সে বিষয়টি দেশের মানুষকে জানাতে হবে। কেউ আইনের ঊর্ধ্বে নয়।' - ইনজিনিয়াস টক শীর্ষক এক ওয়েবিনারে হেফাজতে মৃত্যু ও বিচার বিভাগের ভূমিকা বিষয়ক আলোচনায় বাংলাদেশ সুপ্রীম কোর্টের আইনজীবী ইশরাত হাসান এসকল কথা বলেন।  শনিবার (২০ অক্টোবর) রাত ৯.৩০ টায় কুমিল্লা  বিশ্ববিদ্যালয়ের আইন বিভাগের শিক্ষার্থীদের দ্বারা পরিচালিত সংগঠন ইনজিনিয়াস প্লাটফর্ম ওয়েবিনারটি আয়োজন করে।
 
 শামীম আহমেদের সঞ্চালনায় ইনজিনিয়াস টকে আলোচক হিসেবে ছিলেন বাংলাদেশ সুপ্রীম কোর্টের অ্যাডভোকেট ফাইজুল্লাহ ফয়েজ ও অ্যাডভোকেট ইশরাত হাসান। অ্যাডভোকেট ফাইজুল্লাহ ফয়েজ বলেন, 'কল্যাণমূলক রাষ্ট্রে পুলিশ জনগণের বন্ধু। পুলিশের হেফাজতে মৃত্যু কোনোভাবেই কাম্য নয়। বাহিনীটির কতিপয় সদস্য যারা আইন লংঘন করছে তাদেরকে কঠোর শাস্তির আওতায় এনে হেফাজতে মৃত্যু নিবারণ করতে হবে। এমনকি জিজ্ঞাসাবাদের নামে মারপিট করে স্বীকারোক্তি আদায় করা আইনের লংঘন এবং ভুক্তভোগী এর জন্য আইনের আশ্রয় নিতে পারবে।'
 
তিনি আরও বলেন, 'এটি একটি চমৎকার আইন।আমাদের দেশে আইনের প্রয়োগ কম হয়, তবে ধীরে ধীরে এই আইনের প্রয়োগ লক্ষ্য করা যাচ্ছে।'
 
এডভোকেট ফাইজুল্লাহ ফয়েজ আইনটির কিছু সমস্যার কথাও তুলে ধরেন। তিনি বলেন, 'হেফাজতে মৃত্যু নিবারণ আইনে বলা আছে ১৮০ দিনের মধ্যে ট্রায়াল শেষ করতে হবে। অথচ ৯০ দিনের মধ্যে একটা তদন্ত করার টাইম লিমিট দেয়া আছে এটাও বাধ্যতামূলক করেনি। সেখানে আরো ৩০ দিন সময় দেয়া হয়েছে। তাও সেটা মেন্ডেটরি নয়। এক্ষেত্রে  দেখা যায় তদন্ত করতেই কয়েক বছর পার হয়ে যায়।'
 
উল্লেখ্য, কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের আইন বিভাগের শিক্ষার্থীদের নিয়ে ২০১৭ সাল থেকে আইন বিষয়ক দক্ষতা অর্জন, বিশ্লেষণ, বিতর্ক, মুটিং, পাবলিক স্পিকিংসহ নানা ধরণের কর্মকান্ড করে আসছে ইনজিনিয়াস প্লাটফর্ম। এছাড়াও বর্তমানে আইন সম্পর্কিত সমসাময়িক বিষয় নিয়ে নিয়মিত ওয়েবিনার আয়োজন করছে সংগঠনটি। 

মন্তব্য